advertisement
আপনি দেখছেন

প্রথমে ব্যাটিং করে ১৩৭ রান তুলেছিল রংপুর রেঞ্জার্স। বিপিএলের চট্টগ্রাম পর্বে যেভাবে রান উঠছে তাতে এই রান কোন ব্যাপার নাকি! রাইলি রুশো সেটাই দেখিয়ে দিলেন। তিন নম্বরে ব্যাট হাতে নেমে ঝড়ো একটা ইনিংস খেলে খুলনাকে বড় জয় এনে দিয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকান ব্যাটসম্যান।

rosho mushfiq

এ নিয়ে বঙ্গবন্ধু বিপিএলে তিন ম্যাচ খেলে তিনটিতেই জিতল খুলনা টাইটাস। তিন ম্যাচে ছয় পয়েন্ট নিয়ে পয়েন্ট টেবিলের দুই নম্বরে উঠে বসেছে মুশফিকুর রহিমের দল।

রংপুরের ছোট টার্গেটের জবাব দিতে নেমে শুরুতেই ওপেনার নাজমুল হোসেন শান্তকে (১) হারায় খুলনা। তবে শুরুতে উইকেট হারালেও এরপর রংপুরের বোলারদের আর দাঁড়াতেই দেয়নি রুশো, রহমতুল্লাহ গুলবাজরা। রুশো তিনে নেমে মাত্র ৩১ বল খেলে ৯ চার ২ ছয়ে ৬৬ রানে অপরাজিত ছিলেন। রহমতুল্লাহ গুলবাজ ২২ বলে করেন ৩৭ রান। ১২.৩ ওভারেই মাত্র দুই উইকেট হারিয়ে জয়ের জন্য ১৩৮ রান তুলে ফেলে খুলনা টাইগার্স।

প্রথম ইনিংস:

এর আগে নাঈম শেখ ও ফজলে রাব্বির ঝড়ো দুটি ইনিংসের ওপর ভর করে ১৩৭ রান তোলে রংপুর। ব্যাটিং করতে নেমে শুরুতেই মোহাম্মদ শাহজাদকে (১১) হারানো রংপুর ৪০ রানে হারিয়ে বসে তৃতীয় উইকেট। তবে মোহাম্মদ নাঈম এক প্রান্তে অবিচল ছিলেন।
পরে তার সঙ্গে যোগ দেন ফজলে রাব্বি। কিন্তু এই দুজনের সঙ্গে বাকিরা তাল মেলাতে না পারাতে বড় সংগ্রহ পায়নি রংপুর। নির্ধারিত ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৩৭ রান তোলে দলটি। নাঈম ৩২ বল খেলে ৫ চার ২ ছয়ে ৪৯ রান করেন। রাব্বি ৩৩ বলে ২টি করে চার ছয়ে ৪২ রান করেন।

খুলনার হয়ে শফিউল ইসলাম চার ওভারে ২১ রানে তিন উইকেট নিয়েছেন। মোহাম্মদ আমির ও শহিদুল ইসলাম দুটি করে উইকেট পেয়েছেন।

দুদলের পরবর্তী ম্যাচ:

আগামীকালকেই মাঠে নামতে হবে খুলনা, রংপুর দুদলকেই। কাল দিনের প্রথম ম্যাচে সিলেট থান্ডার্সের মুখোমুখি হবে খুলনা টাইগার্স। ম্যাচটি শুরু হবে দুপুর দেড়টায়। আর দিনের দ্বিতীয় ম্যাচে সন্ধ্যা সাড়ে ৬টায় চট্টগ্রাম চ্যালেঞ্জার্সের মুখোমুখি হবে রংপুর রেঞ্জার্স। দুটি ম্যাচই অনুষ্ঠিত হবে চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে।

sheikh mujib 2020