advertisement
আপনি পড়ছেন

বিরাট কোহলির মতো আগ্রাসী অধিনায়ক বর্তমান সময়ে ক্রিকেট দুনিয়ায় কমই আছে। মাঠে হুটহাটই অগ্নিমূর্তি ধারণ করেন তিনি। দলকে জেতাতে কখনো কখনো অশোভন প্রতিক্রিয়াও দেখান। দক্ষিণ আফ্রিকার বিপক্ষে গতকাল কেপটাউন টেস্টের তৃতীয় দিনে তেমনই আগুণে মূর্তি নিয়ে ধরা দিয়েছিলেন ভারতীয় অধিনায়ক।

stump mic punished in debate 1তরুণদের আদর্শ হতে পারবে না কোহলি

গতকাল ডিন এলগারের নেওয়া ডিআরএস সিদ্ধান্ত সফল হওয়ায় চটে যান কোহলি। ক্ষোভ প্রকাশ করেছেন স্টাম্প মাইকের সামনে গিয়ে। যার ফলে ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েছেন তিনি। ভারতের সাবেক ক্রিকেটার গৌতম গম্ভীর সরাসরিই বলেছেন, কোহলি কোনো দিনও তরুণদের আদর্শ হতে পারবে না। কোহলিকে দেখে কেএল রাহুল, অশ্বিনরাও বাজে মন্তব্য করেছেন।

কোহলিসহ ভারতীয় ক্রিকেটারদের স্টাম্প মাইক বিতর্ক নিয়ে গম্ভীর বলেছেন, ‘কোহলি খুবই অপরিণত মানসিকতার। স্টাম্পের সামনে এসে এভাবে কথা বলা কোনো ভারতীয় অধিনায়কের পক্ষেই উচিত কাজ নয়। এ ধরনের কাজ করলে তরুণদের কাছে কোনো দিনই আদর্শ হয়ে উঠা যাবে না।’

stump mic punished in debateস্টাম্প মাইক বিতর্কে শাস্তি হতে পারে কোহলিদের, ফাইল ছবি

গম্ভীর আরও বলেন, ‘প্রথম ইনিংসে একটি কট বিহাইন্ডের ক্ষেত্রে ৫০-৫০ সুযোগ ছিল। তখন কিন্তু কোহলি চুপ ছিল। একটা কথাও বলেনি। আবেদন করেছিল শুধু মায়াঙ্ক আগারওয়াল। আমার মনে হয়, কোহলির এই কাজ নিয়ে (কোচ রাহুল) দ্রাবিড় অবশ্যই ওর সঙ্গে কথা বলবে।’

ঘটনা ঘটেছিল গতকাল দক্ষিণ আফ্রিকার দ্বিতীয় ইনিংসের ২৭তম ওভারে। অশ্বিনের বলে এলগারের বিরুদ্ধে এলবির আবেদনে সাড়া দেন আম্পায়ার মারাইস ইরাসমাস। কিন্তু রিভিউ নিয়ে বেঁচে যান এলগার। তাতেই ক্ষুব্ধ হন কোহলি।