advertisement
আপনি পড়ছেন

ক্লাব ফুটবলের উন্মাদনা শুরু হতে আরো বেশ কয়েকদিন বাকি। মৌসুম শুরুর আগে প্রস্তুতি হিসেবে ইন্টারন্যাশনাল চ্যাম্পিয়ন্স কাপ খেলছে ক্লাবগুলো। আর এতে ফুটবল সমর্থকদের সামনে এসে হাজির বাড়তি রোমাঞ্চের লড়াই ‘এল ক্লাসিকো’।

el clasico 2017

ইন্টারন্যাশনাল চ্যাম্পিয়ন্স কাপে কাল সকালে মুখোমুখি হচ্ছে বার্সেলোনা ও রিয়াল মাদ্রিদ। বিশ্বের অন্যতম সেরা দুই ক্লাব বার্সেলোনা আর রিয়াল মাদ্রিদের মধ্যকার লড়াই ‘এল ক্লাসিকো’ মনেই বাড়তি আলোচনা, বাড়তি উন্মাদনা। এবারের লড়াইটা যদিও বড় কোন আসরে নয়, তারপরও।

হোক না প্রাক মৌসুম প্রস্তুতি ম্যাচ, স্পেনের সবচেয়ে শক্তিশালি ও ঐতিহাসিক ক্লাব দুটির মুখোমুখি মানেই তো বাড়তি কিছু। বাড়তি রোমাঞ্চ ছড়িয়ে যখন মুখোমুখি হচ্ছে বার্সা-রিয়াল, তখন দ্ইু দলের অবস্থা দুই রকম।

প্রাক প্রস্তুতিতে এখন পর্যন্ত পায়ের নিচে মাটি খুঁজে পায়নি রিয়াল। প্রথম ম্যাচে লিভারপুলের বিপক্ষে টাইব্রেকারে হেরে দ্বিতীয় ম্যাচে ম্যানচেস্টার সিটির বিপক্ষে রীতিমতো তো লজ্জাই পেতে হলো জিনেদিন জিদানের দলকে। ম্যানসিটির বিপক্ষে ৪-১ গোলে হেরেছে রিয়াল।

অপর দিকে, দলবদলের বাজারে আগুন ধরিয়ে দেওয়া নেইমারের কাঁধে সওয়ার হয়ে রীতিমতো উড়ছে বার্সেলোনা। আসরের প্রথম ম্যাচে জুভেন্টাসের বিপক্ষে ২-১ গোলের জয় পাওয়া বার্সা দ্বিতীয় ম্যাচে ম্যানচেস্টার ইউনাইটেডকে হারিয়েছে ১-০ গোলে। দ্ইু ম্যাচে বার্সার হয়ে তিনটি গোলই করেছেন নেইমার।

দলবদলের বাজারে কেন তাকে নিয়ে এতো টানাটানি সেটা বুঝানোর পণই হয়তো করেছেন নেইমার! যদি তেমনটা হয়, কালও নিঃস্বন্দেহে বাড়তি কিছু করতে চাইবেন ব্রাজিল সুপারস্টার। শুধু নেইমার নয়, বার্সা-রিয়ালের প্রতিটা খেলোয়াড়ই চাইবেন সর্বোচ্চটা দিয়ে খেলতে। প্রতিযোগিতটা যে ‘এল ক্লাসিকো’।