advertisement
আপনি দেখছেন

বিরোধপূর্ণ নাগর্নো-কারাবাখের দখল নিয়ে আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের মধ্যকার চলমান যুদ্ধ ক্রমেই তীব্র থেকে তীব্রতর হচ্ছে। দেশ দুটির মধ্যে রাশিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের তিন দফা যুদ্ধবিরতি ব্যর্থ হওয়ার পর উভয় পক্ষের হামলার তীব্রতা বেড়েছে।

azerbaijan city hit armeniaআর্মেনিয়ার বুধবারের হামলায় আজারবাইজানে ধ্বংসস্তূপ

গতকাল বুধবার কারাবাখ সীমান্তবর্তী আজারি ঘনবসতিপূর্ণ এলাকায় একাধিক ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালায় আর্মেনীয় বাহিনী। এতে কমপক্ষে ২১ জন নিহত ও ৭০ জন আহত হয়েছে বলে রাতেই জানিয়েছে আজারবাইজান। আহতদের স্থানীয় হাসপাতালে ভর্তি করে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে বলে জানানো হয়।

এদিকে আজারিদের এ অভিযোগ অস্বীকার করে আর্মেনিয়া বলছে, এ ধরনের কোনো ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালানো হয়নি। উল্টো নাগর্নো-কারাবাখের জনবসতিপূর্ণ এলাকায় আজারি সেনাবাহিনী ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে বলে অভিযোগ করে দেশটি।

এর আগেও আর্মেনিয়া আজারবাইজানের একাধিক শহরে ক্ষেপণাস্ত্র হামলা চালিয়েছে। সে সময়ও আজারি কর্তৃপক্ষ বিষয়টি সামনে আনলে যথারীতি অস্বীকার করে আর্মেনিয়া। তবে গ্যাঞ্জাসহ প্রতিটি হামলায় আজারি শহরের ভয়াবহ ধ্বংসস্তূপের সচিত্র প্রতিবদেন উঠে এসেছে গণমাধ্যমে।

azerbaijan 2 city hit armeniaআগের আর্মেনীয় হামলায় ধ্বংসপ্রাপ্ত আজারি শহর

গত ২৭ সেপ্টেম্বর থেকে নতুন করে শুরু হওয়া যুদ্ধ বন্ধে রাশিয়ার মধ্যস্থাতায় আর্মেনিয়া ও আজারবাইজান দুই দফা যুদ্ধবিরতিতে সম্মত হলেও তা কার্যকর হয়নি। সাবেক সোভিয়েত ইউনিয়নভুক্ত দেশ দুটিকে প্রথম দফায় গত ১০ অক্টোবর এবং দ্বিতীয় দফায় ১৭ অক্টোর সমঝোতা করানোর চেষ্টা করে মস্কো।

দেশ দুটির চলমান সংঘাত বন্ধে রুশ প্রচেষ্টা ব্যর্থ হওয়ার পর দুই পক্ষের মধ্যে মধ্যস্থতায় রাশিয়ার সঙ্গে কাজ করার প্রস্তাব দেয় তুরস্ক। তবে বিষয়টি যুদ্ধরত দেশ দুটির সম্মতির ওপর নির্ভর করছে বলে পরোক্ষভাবে এড়িয়ে যায় রাশিয়া। অভিযোগ রয়েছে, আর্মেনিয়ার পক্ষে রাশিয়া এবং আজারবাইজানের পক্ষে তুরস্ক অবস্থান নিয়েছে।

এরপর যুক্তরাষ্ট্রের মধ্যস্থতায় স্থানীয় সময় গত সোমবার সকালে আর্মেনিয়া ও আজারবাইজানের মধ্যে তৃতীয় দফা যুদ্ধবিরতি কার্যকর হয়। এর কয়েক মিনিটের মাথায় উভয় পক্ষ পরস্পরের বিরুদ্ধে তা লঙ্ঘনের অভিযোগ করেছে।

প্রসঙ্গত, অঞ্চলটি আন্তর্জাতিকভাবে আজারি ভূখণ্ড হিসেবে স্বীকৃত হলেও ৯০-এর দশক থেকে নিয়ন্ত্রণ করছে আর্মেনীয় বিচ্ছিন্নতাবাদীরা। তাদের সহায়তা করা আর্মেনিয়ার সঙ্গে আজারিদের দীর্ঘ যুদ্ধে ৩০ হাজারের বেশি মানুষ নিহত হওয়ার পর যুদ্ধ বিরতিতে ছিল দেশ দুটি।

sheikh mujib 2020