advertisement
আপনি দেখছেন

ইরান পরমাণু অস্ত্র তৈরি করার চেষ্টা করছে- পশ্চিমা বিশ্বের এমন অভিযোগ বেশ পুরনো। তবে ইরানের পক্ষ থেকে এই অভিযোগ বরাবরই নাকচ করা হয়েছে। সেই ধারাবাহিকতায় দেশটির সর্বোচ্চ নেতা আয়াতুল্লাহ খামেনি পরমাণু অস্ত্রের বিষয়টি আবারও নাকচ করে দিলেন।

ayatullah al khameniআয়াতুল্লাহ খামেনি

একই সঙ্গে স্পষ্টভাবে জানিয়ে দিয়েছেন, কখনোই পরমাণু অস্ত্র বানাবে না ইরান, কারণ এ ব্যাপারে ইসলামের বিধিনিষেধ রয়েছে।

দীর্ঘদিন পর গতকাল সোমবার (২২ ফেব্রুয়ারি) সামনাসামনি এসে বিশেষজ্ঞ পরিষদের সদস্যদের উদ্দেশ্যে ভাষণ দেন দেশটির এই সর্বোচ্চ নেতা। সেখানে তিনি বলেন, ইরান যদি পরমাণু অস্ত্র তৈরি করতে চায়, তাহলে সেই প্রচেষ্টা কেউ ঠেকাতে পারবে না। তবে আমরা সেদিকে পা বাড়াচ্ছি না।

iran flag 2

২০১৫ সালে স্বাক্ষরিত পরমাণু সমঝোতা চুক্তি অনুযায়ী, ইরান সাড়ে তিন মাত্রায় ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ পারবে। তবে ২০১৮ সালে সাবেক মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প এই চুক্তি থেকে যুক্তরাষ্ট্রকে বের করে নিয়ে যান। এরপর চুক্তিটি কার্যকরিতা হারিয়ে ফেলে। ইরানও শর্ত থেকে বেরিয়ে এসে ২০ মাত্রার ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করতে শুরু করে।

পরমাণু অস্ত্র তৈরি করতে হলে শতকরা ৯০ ভাগ বা তারও বেশি মাত্রায় ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করতে হয়। ইরান বর্তমানে তৈরি করছে ২০ ভাগ। তবে গতকালের ভাষণে তিনি বলেছেন, শিগগিরই ৬০ মাত্রার ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধ করার দিকে নজর দেবে ইরান।

sheikh mujib 2020