advertisement
আপনি পড়ছেন

রাশিয়ার বিরুদ্ধে ব্ল্যাকমেইল করার অভিযোগ তুলেছে ইউক্রেন। ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী দিমিত্রি কুলেবা বলেন, রাশিয়া নিষেধাজ্ঞা শিথিল করার বিনিময়ে কৃষ্ণ সাগরের বন্দরগুলো অবরোধমুক্ত করার প্রস্তাব দিয়ে মূলত আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে ব্ল্যাকমেইলের চেষ্টা করছে। টিআরটি ওয়ার্ল্ড।

ukrainian foreign minister dmytro kuleba 2ইউক্রেনের পররাষ্ট্রমন্ত্রী দিমিত্রি কুলেবা

ইন্টারফ্যাক্স নিউজ এজেন্সি এর আগে রাশিয়ার উপ-পররাষ্ট্রমন্ত্রী আন্দ্রেই রুডেনকোকে উদ্ধৃত করে জানায়, মস্কো কিছু নিষেধাজ্ঞা তুলে নেওয়ার বিনিময়ে খাদ্য বহনকারী জাহাজগুলোর জন্য মানবিক করিডোর প্রদান করতে প্রস্তুত আছে।

২৪ ফেব্রুয়ারি ইউক্রেনে হামলার পর থেকে কৃষ্ণ সাগরের বন্দরগুলো রুশ সেনারা অবরুদ্ধ করে রেখেছে। সেখানে ২০ মিলিয়ন টনেরও বেশি খাদ্যশস্য আটকে আছে। বিষয়টি বিশ্বব্যাপী খাদ্য সংকটকে উস্কে দিয়েছে।

ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলীয় শহর পোকরভস্কে রকেট হামলা

পূর্ব ইউক্রেনীয় শহর পোকরভস্কে রকেট হামলা চালিয়েছে রুশ বাহিনী। এতে সেখানকার ভবনগুলো কেঁপে ওঠে। হামলায় কংক্রিটের খণ্ড এবং ধাতুর টুকরোগুলো বাতাসে উড়ছিল। চারপাশ ধোঁয়ায় অন্ধকার সৃষ্টি হয়।

দুটি রকেটের একটির আঘাতে কমপক্ষে তিন মিটার গভীর গর্ত সৃষ্টি হয়। চারপাশে ধোঁয়া ছড়িয়ে পড়ে। লোকজন আতঙ্কে ছোটাছুটি করতে থাকে। আশপাশের বাসিন্দারা হামলায় চারজন বেসামরিক লোক আহত হয়েছে বলে জানান ডোনেস্ক সামরিক প্রশাসনের প্রধান পাভলো কিরিলেঙ্কো।

মারিওপোল বন্দর আবার চালু

রাশিয়ান কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, আজভ সাগরে মস্কোর সেনারা মারিওপোল শহরের নিয়ন্ত্রণ নেওয়ার পর দক্ষিণ ইউক্রেনের বন্দরটি আবার খুলে দেওয়া হয়েছে।

রুশ প্রতিরক্ষা মন্ত্রণালয়ের মুখপাত্র ইগর কোনাশেনকভ একটি প্রেস ব্রিফিংয়ে জানিয়েছেন, বন্দরটি দখলে নেওয়ার পর ফের স্বাভাবিকভাবে কাজ শুরু হয়েছে। দক্ষিণ-পূর্ব ইউক্রেনের কৌশলগত বন্দর শহর মারিওপোল সম্প্রতি মস্কো দখল করে নেয়।