advertisement
আপনি পড়ছেন

ঢাকার গুলশানে নজিরবিহীন সন্ত্রাসী হামলায় ২০ জনের বেশি নিহত হওয়ার ঘটনায় শোক প্রকাশ করেছেন ভারতের প্র্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি ও জাপানের প্রধানমন্ত্রী শিনজো আবে। পাশে থাকার আশ্বাস নিয়ে তারা ফোন করেছিলেন বাংলাদেশের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে।

sheikh hasina talking over phone

মোদি ও আবে, দুজনই প্রধানমন্ত্রীকে এই বিপদে সহায়তা করার আশ্বাস দেন। মোদি শেখ হাসিনাকে যথাযথভাবে জিম্মি- সংকট মোকাবেলার জন্য ধন্যবাদ জানান এবং বলেন যে, ‘এই ঘটনার তদন্ত থেকে শুরু করে যে কোনো পর্যায়ে বাংলাদেশকে সাহায্য করতে ভারত প্রস্তুত।’

জাপানের প্রধানমন্ত্রীও শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ জানান। জবাবে প্রধানমন্ত্রী আহত হওয়া জাপানি নাগরিকদের যথাযথভাবে চিকিৎসার ব্যবস্থা করা হবে বলে প্রতিশ্রুতি দেন।

এশিয়ার দুই বড় দেশের রাষ্ট্রপ্রধানকে জিম্মি- সংকট ঠিক কীভাবে মোকাবেলা করা হলো, তা জানান শেখ হাসিনা। এ ছাড়া পরবর্তীতে কী ধরনের পদক্ষেপ নেয়া হচ্ছে বা হবে, সে ব্যাপারও দুই রাষ্ট্রপ্রধানকে অভিহিত করা হয়।

ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি শেখ হাসিনাকে ফোন করেন আজ (দুই জুলাই) সকালে। আর জাপানের প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ফোন করেন আজ বিকেলে। এ ছাড়াও বিশ্বের আরো একাধিক রাষ্ট্রপ্রধান বাংলাদেশের ফোন করে তাদের শোক প্রকাশ করেন বলে জানা গেছে।

এ দিকে আজ রাতে জাতির উদ্দেশ্যে দেয়া ভাষণে, এই বিপদে বাংলাদেশের পাশে থাকার জন্য বিশ্ব সম্প্রদায়কে কৃতজ্ঞতা জানান প্রধানমন্ত্রী।

আপনি আরো পড়তে পারেন

খালেদা জিয়া: গুলশানের ঘটনা দুঃশাসনের বহিঃপ্রকাশ

গুলশানে নিহত ৩ বাংলাদেশি

শাহরিয়ার কবির: গুলশানের ঘটনায় জামায়াত জড়িত

সেনাবাহিনীর বিবৃতি: গুলশানের জিম্মি- ঘটনায় ২০ লাশ উদ্ধার

সেনাবাহিনীর বিবৃতি: গুলশানের জিম্মি- ঘটনায় ২০ লাশ উদ্ধার