advertisement
আপনি পড়ছেন

সৌদি আরবের জেদ্দায় এক আত্মঘাতী বিস্ফোরণে হামলাকারী নিহত এবং নিরাপত্তারক্ষীসহ চারজন আহত হয়েছে। গত বুধবার ওই হামলা হলেও আজ শুক্রবার বিষয়টি প্রকাশ করেছে সৌদি কর্তৃপক্ষ। খবর সৌদি গেজেট ও আরব নিউজ।

abdullah bin zayed abdul rahman al bakri al shehriআবদুল্লাহ বিন জায়েদ আল-সেহরি

সৌদি রাষ্ট্রীয় বার্তা সংস্থা এসপিএ জানিয়েছে, সৌদি নিরাপত্তা বাহিনীর ‘ওয়ান্টেড’ তালিকাভুক্ত এক সন্ত্রাসীকে গ্রেপ্তারের চেষ্টাকালে দেহে থাকা বেল্ট বোমার বিস্ফোরণ ঘটিয়ে নিজেকে উড়িয়ে দেয় ওই ব্যক্তি। জেদ্দার আল সামের এলাকায় বুধবার রাত ১০টার দিকে এ ঘটনা ঘটে।

সৌদি নিরাপত্তা কর্তৃপক্ষ জানিয়েছে, নিহত ওই ব্যক্তির নাম আবদুল্লাহ বিন জায়েদ আল-সেহরি। তিনি সৌদি নাগরিক। গত সাত বছরের বেশি সময় ধরে তিনি ফেরারি ছিলেন। তাকে গ্রেপ্তার করতে যাওয়া নিরাপত্তা বাহিনীর তিন সদস্য বিস্ফোরণে আহত হয়েছেন। এ সময় পাশে থাকা এক পাকিস্তানি নাগরিকও আহত হয়েছেন। আহতদের অবস্থা গুরুতর হওয়ায় তাদের তাৎক্ষণিক হাসপাতালে নেওয়া হয়েছে।

সৌদি আরবে ২০১৫ সালে একটি মসজিদে বিস্ফোরণের ঘটনায় ৯ জনকে ‘ওয়ান্টেড’ ঘোষণা করে নিরাপত্তা বাহিনী। তাদেরই একজন আল সেহরি। সৌদি এই নাগরিক অভ্যন্তরীণ একটি সন্ত্রাসী গোষ্ঠীর সদস্য।

এসপিএ জানায়, ইসলামিক স্টেট বা আইএস সংশ্লিষ্ট এই গ্রুপটি ২০১৫ সালে সৌদির দক্ষিণ-পশ্চিমের আসির অঞ্চলের একটি মসজিদে আত্মঘাতী হামলা চালায়। ওই হামলায় নিরাপত্তা বাহিনীর ১১ জন এবং ৪ বাংলাদেশি শ্রমিক নিহত হন। ওই হামলায় আরও ৩৩ জন আহত হয়েছিলেন।

২০০০ সাল থেকে সৌদি আরবে নিরাপত্তা বাহিনী এবং পশ্চিমা লক্ষ্যবস্তুগুলোতে বারবার জঙ্গি গোষ্ঠী হামলার ঘটনা ঘটেছে। আল কায়েদা, ইসলামিক স্টেটসহ কিছু জঙ্গি গোষ্ঠী এসব হামলা চালিয়েছে। 

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর