আপনি পড়ছেন

২০২২ সালের শুরুর দিকে ইউক্রেনে হামলা শুরু করে রাশিয়া। তবে ৯ মাসের বেশি সময় পার হলেও এখন পর্যন্ত এ ব্যাপারে কোনো ফয়সালা আসেনি। এমন অবস্থায় মার্কিন নাগরিকেরা বিশ্বাস করেন, ওয়াশিংটনের উচিত ইউক্রেনকে যত তাড়াতাড়ি সম্ভব শান্তির জন্য মীমাংসা করার আহ্বান জানানো। শিকাগো কাউন্সিল অন গ্লোবাল অ্যাফেয়ার্সের সাম্প্রতিক এক জরিপে এমন তথ্য পাওয়া গেছে।

stop the warমার্কিনীরা এ যুদ্ধের সমাপ্তি চায়

জরিপে দেখা গেছে, ইউক্রেনকে শান্তির জন্য আহ্বান জানানো উচিত ওয়াশিংটনের- গত জুলাইয়ে এমন ধারণা রাখতেন ৩৮ শতাংশ মার্কিন নাগরিক। কিন্তু সর্বশেষ এই জরিপে এই হার বেড়ে ৪৭ শতাংশে পৌঁছেছে। অন্যদিকে যতদিন লাগে কিয়েভকে সমর্থন করে যাওয়া উচিত এমন ভাবনার লোকও আগের চেয়ে কমে এসেছে। আগে এমন চিন্তা পোষণ করতো ৫৮ শতাংশ মার্কিনি। কিন্তু এখন সেটি ৪৮ শতাংশে নেমে এসেছে।

এদিকে যুদ্ধের কারণে সুবিধা পেয়েছে-এমন প্রশ্নে রাশিয়ার দিকে ভোট পড়েছে ২৬ শতাংশ, ইউক্রেনের দিকেও সমান সংখ্যক। কিন্তু ৪৬ শতাংশ মার্কিন নাগরিক মনে করেন, কোনো পক্ষই এ যুদ্ধ থেকে সুবিধা পায়নি।

us arms in ukraine 8ইউক্রেনে পাঠানো হচ্ছে মার্কিন অস্ত্র

জরিপে দেখা গেছে, ৩০ শতাংশ লোক মনে করে ইউক্রেনের যুক্তরাষ্ট্রের সামরিক হস্তক্ষেপ করা উচিত। ২৭ শতাংশের ভাবনা, যত তাড়াতাড়ি সম্ভব যুদ্ধ শেষ করা উচিত। অন্যদিকে ধীরে ধীরে ইউক্রেনের সমর্থন প্রত্যাহার করা উচিত এমন ভাবনা ২৯ শতাংশ লোকের।

তবে এ অবস্থাতেও সংখ্যাগরিষ্ঠ মানুষ (৬৫ শতাংশ) চায় যুক্তরাষ্ট্র ইউক্রেনকে অস্ত্র দেওয়া অব্যাহত রাখুক। অর্থনৈতিক সাহায্য দেওয়ার পক্ষপাতী ৬৬ শতাংশ, ইউক্রেনীয় শরণার্থী গ্রহণের পক্ষে মত দিয়েছেন ৭৩ শতাংশ মানুষ এবং রাশিয়ার বিরুদ্ধে অবরোধ আরোপের পক্ষে সম্মতি দিয়েছেন ৭৫ শতাংশ লোক।