advertisement
আপনি পড়ছেন

ইউক্রেনের প্রেসিডেন্ট ভলোদিমির জেলেনস্কি বলেছেন, পূর্ব ইউক্রেনে বিপুল পরিমাণ সামরিক সরঞ্জাম মোতায়েন করেছে রাশিয়া। ডনবাসে নৃশংস লড়াই চলছে। তবে গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টগুলো অপরিবর্তিত রয়েছে। আভদিভকা, মারিনকা, পিস্কি ও বাখমুত পয়েন্টে ইউক্রেনীয় বাহিনী প্রবলভাবে রুখে দাঁড়িয়েছে। খবর টিআরটি ওয়ার্ল্ড।

russia attack donbasডনবাসে রাশিয়ার আক্রমণ, ফাইল ছবি

জেলেনস্কির দাবি, খারকিভ অঞ্চলে ইউক্রেনের প্রতিরক্ষা শক্তিশালী রয়েছে এবং দখলদারদের আক্রমণের প্রচেষ্টা ক্রমাগত ব্যর্থ হচ্ছে। দেশের দক্ষিণে লড়াইয়ের ফলে রাশিয়ান সেনাবাহিনী ও তাদের অস্ত্রশস্ত্র ধ্বংস হচ্ছে। আমরা দখলকারীদের জয়ী হওয়ার সম্ভাবনা কমিয়ে দিচ্ছি।

পারমাণবিক কেন্দ্র দখলকারীরা ইউক্রেনের টার্গেটে: যেসব রাশিয়ান সেনা ইউক্রেনের দক্ষিণে ইউরোপের বৃহত্তম পারমাণবিক বিদ্যুৎ কেন্দ্র দখল করেছে, তাদের লক্ষ্যবস্তু বানিয়েছে ইউক্রেনীয় বাহিনী। ভলোদিমির জেলেনস্কি এই দাবি করেছেন। জাপোরিঝিয়ার কেন্দ্রটিতে সম্প্রতি ইউক্রেন এবং রাশিয়ার গোলাগুলি হয়। আক্রমণের প্রথম দিকে রাশিয়ান সৈন্যরা স্টেশনটি দখল করে নেয়।

ukrainian soldiers sit on a military vehicule in severodonetsk donbas regionডনবাসে ইউক্রেনের সেনাবাহিনী

জেলেনস্কি টেলিভিশন ভাষণে বলেন, প্রত্যেক রাশিয়ান সৈন্য আমাদের সেনাবাহিনীর বিশেষ লক্ষ্যে পরিণত হয়েছে। তার অভিযোগ, রাশিয়া পারমাণবিক ব্ল্যাকমেইল হিসাবে প্ল্যান্টটি ব্যবহার করছে।

বহু বেসামরিক নাগরিক স্থানান্তর: ইউক্রেনের চলমান সংঘাতের ফলে অভ্যন্তরীণভাবে বাস্তুচ্যুত হওয়া বিপুল সংখ্যক বেসামরিক নাগরিককে রাশিয়ান নিয়ন্ত্রিত এলাকা থেকে সরিয়ে নেওয়া হচ্ছে। ইউক্রেনের সেনাবাহিনী তাদের জীবন ও বাসস্থান সুরক্ষিত করতে দিনের পর দিন পরিশ্রম করছে।

আনাদোলু এজেন্সি জানিয়েছে, ইউক্রেনের দক্ষিণ-পূর্ব অঞ্চলের জাপোরিঝিয়ায় একটি অভ্যর্থনা কেন্দ্রে বহু বেসামরিক লোক দেখা গেছে। এই এলাকাটির অংশবিশেষ ইউক্রেনীয় বাহিনীর হাতে রয়েছে। রাশিয়ান বাহিনীর কাছ থেকে বিশেষ অনুমোদন নিয়ে বেসামরিক নাগরিকদের সরিয়ে নেওয়া হচ্ছে।

নতুন উসকানির বিষয়ে সতর্ক করল ইউক্রেন: ইউক্রেনের প্রতিরক্ষা গোয়েন্দা সংস্থা দক্ষিণ ইউক্রেনের দখলকৃত পারমাণবিক প্ল্যান্টে নতুন রাশিয়ান উসকানি সম্পর্কে সতর্ক করেছে। কারণ প্ল্যান্টটি নতুন করে গোলাগুলির আওতায় এসেছে।

এনেরহোদার মেয়র দিমিত্রো অরলভ টেলিগ্রামে লিখেছেন, স্থানীয় বাসিন্দারা তাকে গতকাল শনিবার শহরের শিল্প অঞ্চল এবং জাপোরিঝিয়া পারমাণবিক কেন্দ্রের দিকে নতুন রাশিয়ান গোলাবর্ষণের কথা জানিয়েছেন।

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর