আপনি পড়ছেন

সব কিছুরই শেষ থাকে। একদিন ফুটবলকে বিদায় বলে দিতে হবে লিওনেল মেসিকেও। গ্রহান্তরের ফুটবল খেলে বিশ্বের তাবত ফুটবল পাগলদের হৃদয়ের গভীরে জায়গা করে নিয়েছেন এই আর্জেন্টাইন। বার্সেলোনার বিশ্বসেরা হওয়ার অন্যতম রূপকার তিনি। এমনকি মেসির কারণে বদলে গেছে ইউরোপিয়ান ফুটবলের চিত্রটাই। প্রকৃতির নিয়মে মেসি যখন বিদায় নিবেন, তখন বদলে যাবে ফুটবলের চিত্রটাও। সম্প্রতি এমন মন্তব্য করেছেন চেলসির বস হোসে মরিনহো।

গত এক দশকে বার্সেলোনার সব সাফল্যের প্রধান কারিগর মেসি। এর মধ্যে আছে চ্যাম্পিয়ন্স লিগের তিন শিরোপা। আছে লাগা লিগার ছয়বারের মুকুট জয়ের গর্ব। এ ছাড়া আরো অনেক ট্রফিও আছে। সব সাফল্যে মেসিই বার্সেলোনাকে এগিয়ে নিয়েছেন সামনে থেকে।

২০১২ সালে বার্সেলোনার কোচ ছিলেন পেপ গার্দিওলা। সেবার রিয়াল মাদ্রদিদের কোচ থাকা অবস্থায় বার্সেলোনাকে হারিয়েছিলেন মরিনহো। বর্তমানে চেলসির দায়িত্বে থাকা এই বর্ষিয়ান কোচ মনে করেন মেসির না থাকলে এতো সাফল্য ঘরে তুলতে পারতো না বার্সেলোনা।

মরিনহো বলেন, ‘আগামী দশ বছর পর, যখন মেসি থাকবে না, বদলে যাবে ইউরোপিয়ান ফুটবলের মানচিত্র।’

তিনি আরো বলেন, ‘গত কয়েক বছরে ফ্রাঙ্ক রিজকার্ড, পেপ গার্দিওলা ও লুইস এনরিকের কোচিংয়ে বার্সা অনেক জিতেছে। সে সব জয়ের মূল নায়ক কিন্তু মেসি।’ এ বছরের শুরুর দিকে মেসির চেলসিতে যাওয়া নিয়ে খবর ছড়িয়েছিলো। কিন্তু সম্প্রতি এক সাক্ষাৎকারে ওই খবর নাকচ করে দেন মরিনহো।

 

আপনি আরো পড়তে পারেন

এনরিকে: এ জয় অনেক তৃপ্তির

হ্যাটট্রিক করেও রোনালদোর আফসোস

শিরোপা জিতে বার্সার প্রতিশোধ