আপনি পড়ছেন

হজের মৌসুমে মিনা দুর্ঘটনায় এখন পর্যন্ত সর্বমোট ৪১ জন বাংলাদেশী হাজির মৃত্যুর খবর পাওয়া গেছে। এর মধ্যে ১৮ জনের পরিচয় পাওয়া গেছে। বাকিদের মধ্য থেকে নাম জানা গেছে শুধুমাত্র ১২ জন হাজির। অবশিষ্ট ১১ জন হাজির নাম-ঠিকানা সম্পর্কে এখনো নিশ্চিত হতে পারে নি কর্তৃপক্ষ।

mina disaster 2015

এছাড়া একই ঘটনায় আরও ৬১ জন বাংলাদেশী আহত হয়েছিলেন। যাঁরা জেদ্দা ও মক্কার বিভিন্ন হাসপাতালে চিকিৎসা সেবা গ্রহণ করছেন বলে জানিয়েছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। বৃহস্পতিবার দুপুরে গণমাধ্যমকর্মীদের সাথে এক মতবিনিময় সভায় এই তথ্য জানানো হয়।

উল্লেখ্য, গত ২৪ সেপ্টেম্বর সৌদি আরবে হজ কার্য সম্পাদনের অংশ হিসেবে মিনায় পাথর নিক্ষেপের সময় পদলিত হয়ে সাতশ’রও বেশি বিদেশি হাজির মৃত্যুর ঘটনা ঘটে। ওই ঘটনায় বাংলাদেশি হাজিরাও নিহত হন। জেদ্দাস্থ বাংলাদেশ মিশনের সর্বশেষ তথ্য অনুযায়ী, এখন পর্যন্ত সর্বমোট ৪১ জন বাংলাদেশী হাজির মৃত্যু হয়েছে।

মক্কায় এখনও বাংলাদেশী হাজিদের তথ্য উদ্ধারে কাজ চলছে। এ ব্যাপারে জেদ্দার বাংলাদেশ মিশন ও মক্কার বাংলাদেশ হজ মিশন যৌথভাবে কাজ করে যাচ্ছে।

যে সকল বাংলাদেশী হাজির এখনো কোনো সন্ধান পাওয়া যাচ্ছে না, তাদের পরিবারবর্গকে নিচের ঠিকানায় যোগাযোগ করার অনুরোধ করেছে পররাষ্ট্র মন্ত্রণালয়। বাংলাদেশ হজ মিশন, রুম নম্বর ১০৭, টেলিফোন ০০৯৬৬-(০)১২৫৪১৩৯৮০, email: This email address is being protected from spambots. You need JavaScript enabled to view it.

 

আপনি আরও পড়তে পারেন

ভারত থেকে আর গরু আনা হবে না

মিনায় শহিদ হওয়া বাংলাদেশিদের সংখ্যা নিয়ে বিভ্রান্তি

পাসপোর্টের মেয়াদ ও ফি বাড়ছে!

গুগল নিউজে আমাদের প্রকাশিত খবর পেতে এখানে ক্লিক করুন...

খেলাধুলা, তথ্য-প্রযুক্তি, লাইফস্টাইল, দেশ-বিদেশের রাজনৈতিক বিশ্লেষণ সহ সর্বশেষ খবর