advertisement
আপনি দেখছেন

দেড় বছরের বেশি সময় ধরে বিশ্বব্যাপী তাণ্ডব চালাচ্ছে করোনা বা কোভিড-১৯। এতে আক্রান্ত হয়ে বিশ্বে এ পর্যন্ত ৪১ লাখ ৩৭ হাজারের বেশি মানুষের মৃত্যু হয়েছে। এ সময়ে ঘটেছে অনেক মর্মান্তিক ঘটনা। তবে সম্প্রতি একটি সমীক্ষা তুলে এনেছে এসব মৃত্যুর আরেকটি মর্মান্তিক দিক। তারা জানিয়েছে বিশ্বজুড়ে অসংখ্যা শিশু এতিম হয়েছে লাখ লাখ শিশু। এসব শিশুর ভবিষ্যত এক কথায় অন্ধকার।

india 2 3করোনায় অভিভাবক হারিয়েছে এরকম অসংখ্য শিশু

আন্তর্জাতিক মেডিক্যাল জার্নাল দ্য ল্যানসেটের এক রিপোর্টে বলা হয়েছে, করোনায় আক্রান্ত হয়ে মৃত্যুর ফলে বিশ্বজুড়ে এতিম বা অভিভাবকহীন হয়েছে ১১ লক্ষাধিক শিশু। মেক্সিকো, ব্রাজিল ও ভারত রয়েছে এ তালিকার শীর্ষে।

মার্চ ২০২০ থেকে শুরু করে এপ্রিল ২০২১ এ সময়ের মধ্যে সমীক্ষা চালিয়ে ল্যানসেট জানায়, বিশ্বজুড়ে অভিভাবকহীন (পিতামাতা বা অন্য অভিভাবক) হওয়ার এ সংখ্যাটি ১১ লাখ ৩৪ হাজার। এর মধ্যে মেক্সিকোতে এতিম হয়েছে এক লাখ ৪০ হাজার, ব্রাজিলে এক লাখ ৩০ হাজার এবং ভারতে এক লাখ ১৯ হাজার। অন্যদিকে শুধু মাতা বা পিতা হারিয়েছে এমন শিশুর সংখ্যা ১০ লাখ ৪২ হাজার।

india 1 2করোনায় শিশুদের অভিভাবকহীন হওয়ার দিক দিয়ে ভারতের স্থান তৃতীয়

ল্যানসেটের সমীক্ষানুযায়ী ভারতে এক হাজার শিশুর মধ্যে শূন্য দশমিক তিনজন শিশু তাদের প্রাথমিক অভিভাবক হারিয়েছে। অন্যদিকে দক্ষিণ আফ্রিকায় এ হার পাঁচ দশমিক ১০, মেক্সিকোতে তিন দশমিক ৫০, ব্রাজিলে দুই দশমিক ৪০, কলম্বিয়াতে দুই দশমিক ৩০, ইরানে এক দশমিক ৭০, যুক্তরাষ্ট্রে এক দশমিক ৫০, আর্জেন্টিনায় এক দশমিক ১০ এবং রাশিয়ায় এক শতাংশ।

ল্যানসেট তাদের সমীক্ষাতে আরো জানায়, অভিভাবকহীন হওয়ার ফলে শিশুদের সারাজীবনের ওপর খারাপ প্রভাব পড়ে। বিশ্বজুড়ে এত শিশু অভিভাবকহীন হয়ে পড়ায় স্বাভাবিকভাবে এক্ষেত্রে ঝুঁকি অনেকটা বেড়ে গেল।