আপনি পড়ছেন

শীতকাল জমে উঠেছে আর বাগানে এখন লাল, গোলাপি, হলুদ, বেগুনি, নীলের মেলা বসে। সারাবছর না হলেও অনেকে বিশেষ করে এই সময়টায় মৌসুমী ফুলগাছ লাগান। প্রিয় ছাদ কিংবা ইট-কঙ্করের দালানের এক চিলতে বারান্দাটা বাহারি রঙের ফুলে ফুলে ভরে ওঠে।

balcony garden

বিভিন্ন রকম গাঁদা, দেশি-বিদেশি গোলাপ, অ্যাস্টার, কসমস, চন্দ্রমল্লিকা, ডায়ান্থাস, ফ্লক্স, এন্টিরিনাম, জারবেরা, সেলভিয়া, কারনেশান, অ্যাজালিয়া, পিটুনিয়া, নাসস্টারশিয়াম, সূর্যমুখী, মর্নিংগ্লোরি, ক্যালেন্ডুলা, গ্লাডিওলাস, বাগানবিলাস শীতে বাগানকে করে রঙিন।

যারা শীতকালে বাগান করতে চান তারা কেবল ফুলের গাছগুলো লাগিয়ে ফেললেই দায়িত্ব শেষ হয়ে যাবে না। এর জন্য প্রয়োজন যথাযথ যত্ন-আত্তির। বাগানের গাছ আলো, বাতাস, পানি ছাড়া আরও কিছু খাদ্য চায়। অর্থাৎ সার দেয়ার প্রয়োজন হয়।  

অনেকে বাজারের কেনা রাসায়নিক সারের চেয়ে জৈব সার ব্যবহার করতে স্বাচ্ছন্দ্যবোধ করেন। কিন্তু বাড়িতে নিজের হাতে কিভাবে জৈব সার বানানো যায়, তা জানেন না অনেকেই। সামান্য কিছু উপকরণে দিয়েই তৈরি করা যায় এই জৈব সার।

এর জন্য প্রয়োজনীয় উপকরণগুলো হল ডিমের খোসা, কলার খোসা এবং কফি। প্রথমে ডিম-কলার খোসা, কফি এক সঙ্গে মিশিয়ে নিয়ে পরে মিক্সিতে দিয়ে ভাল করে গ্রাইন্ড করে নিলেই সার তৈরি। গ্রাইন্ড করা থকথকে মিশ্রণটি মাটির সাথে মিশিয়ে দেবেন। এটি ক’দিন পরপর অল্প করে গাছের গোড়ায় দিয়ে মাটির সঙ্গে মিশিয়ে দিন।

নিজের বাগানের ফুল-প্রজাপতির ভিড় দেখলে মন আনন্দে-খুশিতে ভরে উঠবে। বাগান করুন, শীতকে উপভোগ করুন।

আপনি আরও পড়তে পারেন

পরিস্কারের সব জাদু টুথপেস্টেই

বাথরুম থাকুক ঝকঝকে

বৃষ্টির দিনে জুতার যত্ন

যে কোনো দাগ তুলতে লেবুর খোসা

চিনির নানান ব্যবহার